মানু্ষের জীবন নিয়ে খেলছে এক শ্রেণির ভুয়া ডাক্তার

30
SHARE

ইউসুফ হায়দার 

কদিন আগে চট্টগ্রামে রাসেল কান্তি নাথ (২৫) নামে এক ভুয়া ডাক্তারকে আটক করা হয়েছিল। কক্সবাজারের কলাতলি মোড় এলাকা থেকে এলএমএএফ এর ছয় মাস মেয়াদী প্রশিক্ষণ নেয়া রাসেল মাত্র এসএসসি পাশ করেই মা ও শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ ডাক্তার হিসেবে রোগীদের সাথে বেশ কিছু দিন প্রতারণা করে আসছিলো। কিন্তু নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রুহুল আমীনের হাতেই তার ডাক্তার পদবিকে বিদায় জানাতে হয়।

বন্দর নগরী চট্টগ্রামের বাকলিয়া থানার বাস্তহারা এলাকার নীল ভাগ হাউস নামে একটি ফার্মেসিতে অভিযান চালানোর পর এসব তথ্য জানা যায়। নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রুহুল আমীন জানিয়েছিলেন, মাত্র এসএসসি পাশ করেই রোগিদের সাথে প্রতারণা করে আসছিলো সে।

রাজধানীর ভাটারা কুড়াতলী বাজারের রাসেল মেডিসিন কর্ণার নামক চেম্বারে রোগী দেখতেন ডা. শাহাদাত হোসেন আমানউল্লাহ। তার নামের পাশে ডিগ্রী লেখা এমবিবিএস, এফসিপিএস (মেডিসিন) পার্ট-২, সিসিডি (বারডেম), ডিএমইউ (ঢাকা), কনসালটেন্ট সনোলজিস্ট। র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতের কাছে বিশেষজ্ঞ দাবিদার এই ডাক্তার কোনো সনদ দেখাতে পারেননি। শেষ পর্যন্ত ভুয়া ডাক্তার হিসাবে আদালত তাকে ৬ মাসের কারাদণ্ড ও ১ লাখ টাকা জরিমানা করেন।

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের গোদনাইল চৌধুরীবাড়ি বাসস্ট্যান্ডে অবস্থিত একটি হাসপাতালে অভিযান চালিয়ে মোবারক ইসলাম (৪০) নামে এক ভুয়া ডাক্তারকে অপারেশন টেবিলে হাতেনাতে গ্রেফতার করে ভ্রাম্যমাণ আদালত। ভুয়া ওই ডাক্তার জনস্বাস্থ্য জেনারেল হাসপাতালে হানিফা আক্তার (১৭) নামে এক কিশোরীর এপেন্ডিসাইটিসের অপারেশন করছিলেন। পরে তাকে দুই বছরের কারাদণ্ড দেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের ম্যাজিস্ট্রেট।

বিভিন্ন সময় এমন ভুয়া ডাক্তারদের গ্রেফতার হওয়ার খবর পাওয়া যায়। কিন্তু খবরের বাইরে নিশ্চয় আরও অনেকেই আছেন। যারা চিকিৎসার নামে আসলে মানুষের জীবন নিয়েই খেলছেন। এটা যে কত ভয়ংকর একটি ব্যাপার তা এই ভুয়া চিকিৎসকদের অনুধাবন করারও কথা নয়। বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই ভুয়া ডিগ্রিধারী ডাক্তারদের ভুল চিকিৎসায় রোগীর শারীরিক অবস্থা জটিল হয়ে পড়ে। অল্প সময়েই নিভে যায় অনেকের জীবন প্রদীপ। বিএমডিসি’র হিসেবে শুধু রাজধানীতে আড়াই সহস্রাধিক ভুয়া ডাক্তার রয়েছে। সারাদেশে এ সংখ্যা ২০ হাজারেরও বেশি। বাস্তবে বিএমডিসি’র হিসাবের চেয়েও কয়েকগুণ বেশি ভুয়া ডাক্তার ঢাকাসহ সারাদেশে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে। ভুয়া ডাক্তারের পাশাপাশি জাল ডিগ্রীধারী ‘বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের’ সংখ্যাও কম নয়। তারা এমবিবিএস পাসের পর নামের আগে পিছে দেশ-বিদেশের ভুয়া উচ্চতর ডিগ্রী ব্যবহার করে রোগীদের সাথে প্রতারণা করছে।

যে কোনো মূল্যে এদেরকে নিভৃত করতে হবে। কিন্তু সাধারণ মানুষের পক্ষে তো কিছু করা সম্ভব না, তাই যা করার তা করতে হবে, রাষ্ট্রকেই। আমরা চাই ভুয়া ডাক্তারদের সমূলে নির্মূল করা হোক। এতে করে বহু রোগীর জীবন রক্ষা পাবে।

রিলেভেন্ট এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি – ঠিকানা – YouTube.com/Bangladeshism

আপনার মন্তব্য