আবারো স্বর্ণ মন্দির
November 15, 2016
Bangladeshism Desk (767 articles)
Share

আবারো স্বর্ণ মন্দির

বাংলাদেশের পর্যটন এড়িয়াগুলোর মধ্যে অন্যতম হচ্ছে বান্দরবান। দেশের সুউচ্চ পর্বতশৃঙ্গ ছাড়াও বান্দরবানে বসবাসকারী পাহাড়ি মানুষদের বৈচিত্র্যপূর্ণ জীবন প্রকৃতি ভ্রমণপিপাসুদের দারুণভাবে আকর্ষণ করে। এর পাশাপাশি সাম্প্রতিক বছরগুলোতে বান্দরবানের অন্যতম আকর্ষণ হয়ে উঠেছে ‘বুদ্ধ ধাতু জাদি’ তথা স্বর্ণ মন্দির পরিদর্শন।

বান্দরবানে যারাই বেড়াতে আসেন, একবারের জন্য হলেও ঘুরে দেখেন এই স্বর্ণ মন্দির। সোনা রঙে রাঙানো এই মন্দিরের অবয়বে নাকি সত্যি সত্যিই সোনা ব্যবহার করা হয়েছে বলেও একটি ধারণা প্রচলিত আছে। ঘটনা সত্য মিথ্যা যাইহোক, পর্যটকদের কাছে পাহাড়ের চূড়ায় নির্মিত এই বুদ্ধ মন্দিরের আকর্ষণ যে দুর্নিবার তাতে সন্দেহ নেই।

কিন্তু গত নয় মাস পর্যটকরা এই স্বর্ণ মন্দির দেখা থেকে বঞ্চিত ছিলেন। মন্দিরের পবিত্রতা রক্ষায় গত ফেব্রুয়ারিতে পর্যটকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছিল কর্তৃপক্ষ। তাই এই সময়ে যারা বান্দরবান ভ্রমণ করেছেন তাদের মনে একটা অতৃপ্তি রয়েই গেছে।

তবে এবার আবার খুলেছে স্বর্ণ মন্দিরের সে বন্ধ দুয়ার। প্রায় নয় মাস পর বান্দরবানের ‘বুদ্ধ ধাতু জাদি’ বা স্বর্ণ মন্দির অবশেষে পর্যটকদের জন্য আবার খুলে দেয়া হয়েছে। ১৬ই নভেম্বর থেকে সেখানে আবার পর্যটকরা প্রবেশ করতে পারবেন।

খবরে বলা হয়, বান্দরবান জেলায় অবস্থিত অন্যতম একটি দর্শনীয় স্থান ‘বুদ্ধ ধাতু জাদি’ যেটি মূলত স্বর্ণ মন্দির নামেই পরিচিত, মন্দিরের পবিত্রতা রক্ষায় গত ফেব্রুয়ারিতে সেটিতে পর্যটকদেরআরোপ করে মন্দির কর্তৃপক্ষ। গত ২০শে ফেব্রুয়ারি থেকে সেই নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হয়। তবে ১৬ নভেম্বর বুধবার থেকে নিষেধাজ্ঞাটি তুলে নেয়া হচ্ছে।

এখন থেকে সেখানে প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর নজরদারির মধ্যে পর্যটকরা প্রবেশ করতে পারবেন। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত সেখানে পর্যটকরা প্রবেশের সুযোগ পাবেন। মাঝে দুপুর ১২টা থেকে ২টা পযর্ন্ত প্রার্থনার জন্য বন্ধ থাকবে।

তাহলে আর দেরি কেন, যাদের এখনো দেখার সুযোগ হয়ে উঠেনি তারা শিগগিরই ঘুরে আসুন বান্দরবান। পাহাড়ি প্রকৃতি ও আর মানুষের জীবন ছবি দেখার পাশাপাশি দেখে আসুন স্বর্ণ মন্দিরের শোভাও।

তবে মন্দির পরিদর্শনের সময় একটা কথা অবশ্যই আমাদের মনে রাখা উচিত, মন্দির শুধুমাত্র দর্শনীয় স্থান নয়, এটি বুদ্ধ সম্প্রদায়ের পূজা অর্চনা করার পবিত্র স্থানও। তাই মন্দির পরিদর্শন করার সময় আমাদের এমন কিছু করা ঠিক হবে না যাতে তাদের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত লাগে।  

রিলেভেন্ট এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি – ঠিকানা – YouTube.com/Bangladeshism

আপনার মন্তব্য