সৌরজগতের প্যাটার্নটাই বদলে যাচ্ছে

64
SHARE

ইশতিয়াক আহমেদ

আমাদের সৌরজগতের বর্তমান প্যাটার্ন বদলে যাচ্ছে মর্মে জানানো হয়েছে এক গবেষণাপত্র। গবেষণাপত্রটি সম্প্রতি ছাপা হয়েছে আন্তর্জাতিক বিজ্ঞানজার্নালজিওফিজিক্যাল রিসার্চ লেটার্স’-এ। এতে বলা হয়েছেরক্তের জোরকমে যাচ্ছে আমাদের সৌরমণ্ডলে সূর্যের সবচেয়ে কাছে থাকা গ্রহবুধের!

এর ফলে ক্রমান্বয়ে গ্রহটি আমাদের সৌরজগৎ থেকে হারিয়েই যেতে পারে বলে আশঙ্কার কথা জানানো হয়েছে গবেষণাটিতে।

গবেষণাপত্রের বরাত দিয়ে প্রকাশিত খবরে বলা হয়েছে, বুধের শরীরেররক্তখুব দ্রুত ঠান্ডা হয়ে যাচ্ছে। ফলে, চামড়া কুঁচকে যাচ্ছে বুধের! তার চেহারাটা হয়ে যাচ্ছে আরও ছোটখাট। গায়েগতরের দিক থেকে এই সৌরমণ্ডলের সবচেয়েহীনবলগ্রহ বুধ যত দিন যাচ্ছে, ততই হয়ে যাচ্ছে আরও বেশিপুঁচকে’!

ঠিক যেমন, আমাদের বয়স যত বাড়ে, ততইরক্তের জোরকমে যায়।একটা শিশুর শরীরে রক্ত যতটা গরম থাকে, কোনও বৃদ্ধের শরীরে তা ততটা থাকে না। আর রক্ত অতটা গরম থাকে বলেই শিশুদের শরীর অতটা তরতরিয়ে বাড়ে। শিশুদের গায়েগতরের বাড়বৃদ্ধির হার জোয়ানের চেয়ে তুলনায় বেশি

বুধেরওরক্তের জোরতেমনই কমে যাচ্ছে, খুব দ্রুত। মানে, তার অন্তরের, অন্দরের (কোর) যে গনগনে আগুনের আঁচ (তাপমাত্রা), তা খুব তরতরিয়ে কমে যাচ্ছে। বুধেরভেতরটাউত্তরোত্তর ঠান্ডা মেরে যাচ্ছে।

এ প্রসঙ্গে মুম্বইয়েরটাটা ইনস্টিটিউট ফর ফান্ডামেন্টাল রিসার্চ’ (টিআইএফআর)-এর জ্যোতির্বিজ্ঞানের বিশিষ্ট অধ্যাপক দেবেন্দ্র ওঝা বলছেন, ‘বুধ গ্রহটি যে চেহারায় উত্তরোত্তর ছোট হয়ে যাচ্ছে, তা গত শতাব্দীর সত্তরের দশকেই টের পাওয়া গিয়েছিল। সেই সময়েই নাসার মেরিনার১০ মহাকাশযান বুধের পাশ দিয়ে ছুটতে ছুটতে জানিয়েছিল, চেহারায় বুধ খাটো হয়ে যাচ্ছে।

একেবারেই হাল আমলে (২০১১ থেকে ২০১৫ এপ্রিল পর্যন্ত) বুধের পাশ দিয়ে ঘুরে এসেছে আরেকটি মহাকাশযানমেসেঞ্জার তার দেওয়া তথ্য জানাচ্ছে, বুধ চেহারায় খাটো হয়ে গিয়েছে প্রায় . মাইল বা ১৪ কিলোমিটার। এই হারটা বিজ্ঞানীদের গাণিতিক মডেলের সঙ্গে অনেক বেশি খাপ খাচ্ছে। এর ফলে, এমন এক দিন হতেই পারে যেদিন বুধ ছোট হতে হতে এতটাই দুর্বল হয়ে পড়বে যে সূর্য তাকে গিলেই খেয়ে ফেলবে।

তেমনটাই যদি ঘটে, তাহলে সৌরজগতের পরিচিত মডেলটিই তো বদলে যাবে। ঘটে যেতে পারে ভিন্ন কোন ভয়াবহ ব্যাপারও।

রিলেভেন্ট এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি – ঠিকানা – YouTube.com/Bangladeshism

আপনার মন্তব্য